সিমেন্টের ডিলারশিপ ব্যবসা শুরু করুন | Make 5 lakh rupees by doing cement dealership business, Right now

বর্তমানে আমাদের আন্ডার কনস্ট্রাকশন দেশগুলিতে সিমেন্টের ডিলারশিপ ব্যবসা করে অনেক লাভবান হচ্ছেন সেই সকল ব্যবসায়ী। আপনিও যদি সিমেন্টের ডিলারশিপ ব্যবসা করেন তাহলেও আপনার প্রতি মাসের ইনকাম কয়েক লক্ষ টাকা ছাড়িয়ে যেতে পারে। আপনি খেয়াল করলে দেখবেন প্রতিটা বিল্ডার্স দোকান প্রতিনিয়ত তাদের ব্যবসা কোথা থেকে কোথায় নিয়ে চলে গেছে। থাক একটা ছোট বিল্ডার্স দোকান তৈরি করে একজন ছোট ব্যবসায়ী আজ বিশাল বড় পুঁজির মালিক হয়ে উঠেছে। প্রতিনিয়ত মানুষের নিত্য নতুন ঘর বাড়ি তৈরি করার জন্য যেভাবে সিমেন্ট এর প্রয়োজনীয়তা দিনকে দিন বাড়ছে তার দিকে নজর দিয়ে আপনিও যদি সিমেন্টের ডিলারশিপ ব্যবসা শুরু করেন তাহলে আপনি সফল হবেন। আর আজকের এই প্রতিবেদনে সিমেন্টের ডিলারশিপ ব্যবসা করার জন্য যাবতীয় সকল তথ্য দেওয়া হল।

Cement dealership business
Cement dealership

সিমেন্টের ডিলারশিপ নিতে কত টাকা খরচ হয়?

প্রথমত সিমেন্টের ডিলারশিপ ব্যবসা কে বুঝতে গেলে এবং ব্যবসায় বিনিয়োগ এর অর্থ বোঝার জন্য আপনাকে কয়েকটা জিনিস বুঝতে হবে। সাধারণত প্রতিটা বড় সিমেন্ট কোম্পানি তাদের ডিলারশিপ দেওয়ার জন্য বেশ কিছু জিনিস রিকোয়ারমেন্ট হিসেবে প্রতিটি ডিলারের কাছ থেকে চাই।

  • সিকিউরিটি ডিপোজিট- কমপক্ষে 1 লক্ষ থেকে 3 লক্ষ টাকা।
  • স্টক বাবদ খরচ 1 লক্ষ টাকা থেকে 2 লক্ষ টাকা।
  • ইন হ্যান্ড ক্যাশ ২ লক্ষ টাকা থেকে 4 লক্ষ টাকা।

বোঝার সুবিধার্থে আপনাকে এক কথায় বলা যেতে পারে এই ব্যবসা করতে গেলে আপনাকে কমপক্ষে 9 থেকে 10 লক্ষ টাকা পুঁজি নিয়ে সিমেন্টের ডিলারশিপ ব্যবসায় নামতে হবে। আপনার কাছে যদি অল্প পরিমাণ পুঁজি থাকে তাহলেও আপনি ডিলারশিপ নিতে পারেন তবে সরাসরি কোম্পানির কাছ থেকে ডিলারশিপ পাবেন না, তাহলে আপনাকে সাব ডিলারশিপ নিতে হবে, যা মেইন ডিলার এর কাছ থেকে আপনি পেয়ে যাবেন।

অবশ্যই পড়ুন- হ্যাচারি ব্যবসা করে 1লাখ টাকা ইনকাম করুন

সিমেন্টের ডিলারশিপ নেওয়ার শর্ত কি কি?

সিমেন্টের ডিলারশিপ ব্যবসা করতে গেলে আপনাকে বেশ কিছু শর্ত পালন করতে হবে। যেমন প্রথমে কম্পানি দেখবে যে আপনি যে এলাকাতে ডিলারশিপ নিয়ে ব্যবসা করবেন তার 3 থেকে 5 কিলোমিটারের মধ্যে যেন দ্বিতীয় কোন ডিলার না থাকে। যদি পাঁচ কিলোমিটার এলাকার মধ্যে কোন ডিলার থেকে থাকে তাহলে আপনাকে ডিলারশিপ দেওয়া হবে না। তাই আপনি ব্যবসা শুরুর আগে মার্কেটে রিচার্জ করে দেখবেন যে আপনার এলাকার মধ্যে পাঁচ কিলোমিটারের ভেতরে কোন ডিলার রয়েছে কিনা কোন কোম্পানির।

মনে করুন ACC কোম্পানি ডিলারশিপ আপনি নিতে চান তাহলে আপনাকে দেখতে হবে 5 কিলোমিটার এলাকার মধ্যে ACC কোম্পানির ডিলার রয়েছে কিনা। যদি ডিলার থেকে থাকে তাহলে আপনাকে অন্য কোম্পানির ডিলারশিপ নিতে হবে। আর যে জায়গায় ব্যবসা করবেন সেটা যেন কমপক্ষে 500 বর্গফুট হয়ে থাকে। আর দোকান টা অবশ্যই জানো রাস্তার ধারে হয়।

  • 5 কিলোমিটার এলাকার মধ্যে দ্বিতীয় কোন ডিলার যেন না থাকে।
  • দোকানটি কমপক্ষে যেন 500 বর্গফুটের হয়।
  • দোকানের ভিতর যেন তাপ জল নিরোধক কোন রুম থাকে।
  • দোকানটি যেন রাস্তার ধারে হয়।

সিমেন্টের ডিলারশিপ ব্যবসা করার জন্য কি কি ডকুমেন্ট লাগে?

যে কোন কোম্পানির কাছ থেকে আপনি যদি সিমেন্টের ডিলারশিপ নেন তাহলে অবশ্যই আপনাকে বেশ কিছু ডকুমেন্ট আগে থেকে জোগাড় করে রাখতে হবে। ডিলারশিপ এর জন্য যে সকল ডকুমেন্ট লাগে সেগুলো হলো-

  • আধার কার্ড বা ভোটার কার্ড
  • দোকানের জায়গার দলিল
  • দোকান ভাড়ার আইনি কাগজপত্র
  • ব্যাংক স্টেটমেন্ট
  • কারেন্ট ব্যাংক একাউন্ট

সিমেন্টের ডিলারশিপ ব্যবসা করতে কত বড় জায়গার প্রয়োজন?

সিমেন্টের ডিলারশিপ ব্যবসা করতে গেলে আপনাকে কমপক্ষে 500 বর্গফুট জায়গা নিয়ে ব্যবসায় নামতে হবে। 500 বর্গফুট জায়গার মধ্যে কমপক্ষে দুটো রুম অবশ্যই থাকতে হবে। একটা থাকবে আপনার অফিস আর দ্বিতীয় টা সিমেন্ট রাখার গুদামঘর বা স্টোর রুম। আপনি চাইলে আরও বড় জায়গা নিয়ে সিমেন্টের ডিলারশিপ নিতে পারেন। আবার একসাথে দুটো জায়গা না থাকলেও আপনি ডিলারশিপ এর জন্য আবেদন করতে পারেন। সাধারণত সিমেন্টের ডিলারশিপ ব্যবসা করতে গেলে সিমেন্ট রাখার জন্য একটা বড় স্টোররুমের প্রয়োজন রয়েছে। তাই ব্যবসার সুবিধা হচ্ছে আপনি যদি STORE-ROOM অন্য জায়গায় আর অন্য জায়গায় অফিস বানান তাহলেও আপনি সিমেন্টের ডিলারশিপ পেয়ে যাবেন।

Cement godown
সিমেন্টের গোডাউন

সিমেন্ট রাখার STORE-ROOM কেমন হবে?

সিমেন্ট যেহেতু জলীয় কোন জিনিসের সংস্পর্শে এসে জমাট বেধে যায় তাই সিমেন্টের STORE-ROOM অবশ্যই আপনাকে জল নিরোধক এবং রোদ ও জলীয়বাষ্প নিরোধক বানাতে হবে। সাধারণত প্রতিটা সিমেন্ট ডিলাররা তাদের স্টোররুম কে বদ্ধ করে রাখেন অর্থাৎ স্টোর রুমে কোন জানালা রাখেন না। আপনাকেও STORE-ROOM এমনভাবেই বানাতে হবে যাতে রোদ-বৃষ্টি একেবারেই রুমের ভেতরে প্রবেশ করতে না পারে।

আরো পড়ুন- ফেলে দেওয়া জামা কাপড় থেকে 1 লক্ষ টাকা আয়

সিমেন্টের ডিলারশিপ ব্যবসা করতে গেলে কি কি লাইসেন্স এর প্রয়োজন?

সিমেন্টের ডিলারশিপ ব্যবসা করতে গেলে আপনাকে বেশ কয়েক রকমের লাইসেন্স নিয়ে শুরু করতে হবে ব্যবসা। যেমন প্রতিটা ব্যবসা শুরুর আগেই প্রতি ব্যবসায়ী তাদের ব্যবসার জন্য ট্রেড লাইসেন্স নিয়ে থাকে যেমন আপনাকে ও আপনার ব্যবসা শুরুর আগে ট্রেড লাইসেন্স নিতে হবে, এবং আরো জরুরি সকল প্রকার লাইসেন্স নিতে হবে। সাধারণত সিমেন্টের ডিলারশিপ ব্যবসা করতে যে সকল লাইসেন্স লাগে সেগুলি হল-

  • কোম্পানি বা প্রতিষ্ঠান রেজিস্ট্রেশন নাম্বার
  • দোকান আইনের অধীনে রেজিস্ট্রেশন
  • ট্রেড লাইসেন্স
  • জিএসটি নাম্বার
  • ট্যাক্স রিটার্ন পেপার
  • কারেন্ট ব্যাংক একাউন্ট ও
  • ব্যাংক স্টেটমেন্ট পেপার
  • জায়গার দলিল

আপনি যেহেতু ডিলারশিপ ব্যবসা করবেন তাই অবশ্যই আপনাকে আপনার দোকানের রেজিস্ট্রেশন করাতে হবে। এছাড়া টাকা লেনদেনের জন্য আপনাকে অবশ্যই ব্যাংক কারেন্ট একাউন্ট রাখতে হবে। আর আপনার ব্যবসার ট্রানজাকশন এর জন্য বা লেনদেন এর জন্য জিএসটি নাম্বার এবং ব্যাংকের স্টেটমেন্ট এর প্রয়োজন পড়বে। আপনি সরকারের কাছ থেকে প্রদত্ত সকল প্রকার লাইসেন্সের জন্য বর্তমানে অনলাইনে প্রতিটা লাইসেন্সের ওয়েবসাইটে গিয়ে আবেদন করতে পারেন। এছাড়াও আপনি চাইলে আপনার নিকটবর্তী পঞ্চায়েত অফিস অথবা বিডিও অফিসের সাহায্যে সকল প্রকার লাইসেন্স পেতে পারেন। আর ব্যাংক স্টেটমেন্টের জন্য আপনাকে ব্যাংকে যোগাযোগ করতে হবে।

সিমেন্টের দোকান কোথায় বানাতে হবে?

সিমেন্টের ডিলারশিপ ব্যবসা করতে গেলে অবশ্যই আপনাকে যে STORE-ROOM বানাতে হবে সিমেন্ট রাখার জন্য তা যেন রাস্তার ধারে হয়ে থাকে। কারণ কোম্পানি থেকে সরাসরি সিমেন্ট গাড়ি ভর্তি করে আসার পরে আপনার স্টোররুমে পৌঁছানোর জন্য উপযুক্ত যদি সড়কপথ না থাকে বা রাস্তার ধারে আপনার দোকান না থাকে তাহলে অনেক সমস্যার মধ্যে পড়তে হবে। এই কারণে প্রতিটা সিমেন্ট কোম্পানি, তাদের ডিলারশিপ দেওয়ার আগে এই জিনিসটা যাচাই করে নেয় যে আপনার দোকান ও স্টোর রুম কোন জায়গায় আপনি তৈরি করেছেন বা করছেন। এছাড়াও যখন কোন কাস্টমার আপনার কাছ থেকে সিমেন্ট কি নেবে তাদেরকে সিমেন্ট দেবার জন্য আপনার STORE-ROOM টা রাস্তার ধারে হওয়া ভীষণ প্রয়োজনীয়।

অবশ্যই পড়ুন- আয়ুর্বেদ ওষুধের ব্যবসা কিভাবে খুলবেন? 

সিমেন্টের ডিলারশিপ কিভাবে পাবেন?

সিমেন্টের ডিলারশিপ ব্যবসা করার ইচ্ছা অনেক মানুষের মধ্যেই রয়েছে কিন্তু সঠিক আইডিয়া না থাকার জন্য অনেকেই ব্যবসা করতে পারেন না। কিন্তু সিমেন্টের ডিলারশিপ পাওয়া ভীষণ সহজ ব্যাপার। আপনি ভারতীয় হন কিংবা বাংলাদেশি প্রতিটা জায়গাতেই যেসকল বড় বড় সিমেন্টের কোম্পানি রয়েছে তাদের ডিলারশিপ নিয়ে ব্যবসা করতে গেলে আপনাকে তাদের রিকোয়ারমেন্ট অনুযায়ী শর্তগুলি মানতে হবে। এছাড়া আপনাকে যে কোন কোম্পানির ডিলারশিপ নেওয়ার জন্য সেই কোম্পানির ওয়েবসাইটে গিয়ে সরাসরি কোম্পানির মার্কেটিং ম্যানেজারের সাথে কথা বলে ডিলারশিপ নিতে পারেন।

সরাসরি কোম্পানির ওয়েবসাইটে গিয়ে আপনাকে মেইল করতে হবে এবং একটা ফর্ম ফিলাপ করতে হবে ডিলারশিপ নেওয়ার জন্য। কোন কোন কোম্পানির মার্কেটিং ম্যানেজার সরাসরি ফোনে কথা না বললেও মেল এর সাহায্যে কথা বলে থাকেন। তাই আপনি যখন ডিলারশিপ এর জন্য আবেদন করবেন তখন থেকে সর্বদা আপনার মেইল চেক করবেন। আপনি যদি কোম্পানির সকল শর্ত যথাযোগ্যভাবে পালন করেন তাহলেই আপনি ডিলারশিপ পেয়ে যাবেন। ডিলারশিপ নেওয়ার জন্য কোম্পানির অফিসিয়াল ওয়েবসাইট গুলি দেওয়া হল-

Top 10 Cement Companies in India
সিমেন্ট কোম্পানি

ভারতের সেরা 10টি সিমেন্ট কোম্পানি কি কি? (Top 10 Cement Companies in India)

  1. আলট্রাটেক সিমেন্ট (Ultratech Cement)
  2. অম্বুজা সিমেন্ট (Ambuja Cement)
  3. ACC সিমেন্ট
  4. JSW Cement
  5. JP সিমেন্ট (JP Cement)
  6. বিড়লা সিমেন্ট (Birla Cement)
  7. ইমামি ডাবল বুল সিমেন্ট (Emami Double Bull Cement)
  8. শ্রী সিমেন্ট (Shree Cement Ltd)
  9. রামকো সিমেন্ট (The Ramco Cements Limited)
  10. ইন্ডিয়া সিমেন্ট (India Cements Ltd)

বাংলাদেশের সেরা 10টি সিমেন্ট কোম্পানি কি কি?(Top 10 Cement Companies in Bangladesh)

  1. ছাতক সিমেন্ট (Chhatak Cement)
  2. মেট্রোসেম সিমেন্ট (Metrocem Cement Ltd.)
  3. আকিজ সিমেন্ট (Akij Cement Company Ltd.)
  4. ইস্টার্ন সিমেন্ট (Eastern Cement Industries Ltd.)
  5. আনসার সিমেন্ট (Anwar Cement Limited.)
  6. CCBL সিমেন্ট (CEMEX Cement Bangladesh Ltd.)
  7. ইউনিক সিমেন্ট (Unique Cement Industries Ltd.)
  8. সেভেন সিমেন্ট (Seven Circle (BD) Ltd.)
  9. জাপান বাংলা সেমেন্ট (Bengal Tiger Cement Industries Ltd)
  10. আলহাজ্ব মোস্তফা (Alhaj Mostafa-Hakim Cement Industries Limited)

সিমেন্টের ডিলারশিপ ব্যবসায় লাভ কত?

সাধারণত সিমেন্টের ডিলারশিপ ব্যবসায় লাভের পরিমাণ অনেকটাই বেশি হয়ে থাকে। যেহেতু বর্তমান সময়ে সিমেন্টের চাহিদা ভিষন বেশি তাই আপনি যদি এই ব্যবসা করেন আপনার লাভের পরিমাণ অনেক বেশি হবে। বড় কোম্পানির ডিলারশিপ ব্যবসা করলে প্রতিটা সিমেন্টের উপরে আপনি 3% থেকে 8% লাভ রাখতে পারেন। ছোট কোন কোম্পানির কাছ থেকে আপনি ডিলারশিপ নিলে 8% থেকে 10% লাভ রাখতে পারেন। এছাড়াও বিভিন্ন সময়ে কোম্পানি বিভিন্ন রকমের অফার এবং ছাড় দিয়ে থাকে। তাই আপনি যখন সিমেন্টের ডিলারশিপ ব্যবসা করবেন তখন আপনি নিজেই বুঝতে পারবেন প্রতিদিন কেমন বেশি পরিমাণে লাভ থাকছে। সাধারণত একজন সিমেন্টের ডিলার ব্যবসায়ী প্রতিদিন 100 বস্তা করে সিমেন্ট বিক্রি করতে পারলে, প্রতিদিন লাভ করতে পারে 5 থেকে 8 হাজার টাকা।

নতুন নতুন ব্যবসার আইডিয়া দেখুন-

1 হাজার টাকায় ভিনিগার তৈরির ব্যবসা করুন

চাউমিন তৈরির ব্যবসা

Leave a Comment